সারাদেশ

কালিয়াকৈরে টাকা না পেয়ে ভাংচুর,এক নারীকে লাঞ্চিত, টাকা লুটের অভিযোগ

কালিয়াকৈর,সংবাদদাতাঃ
গাজীপুরের কালিয়াকৈরে চাহিদা অনুযায়ী টাকা না পেয়ে সোমবার সকালে
পুরোনো ঘর ও দোকান ভাংচুর করেছে বনবিভাগের লোকজন। এসময় এক নারীকে
লাঞ্চিত করে তার দোকান থেকে টাকাসহ ক্যাশবাক্স লুট করেছে বলেও অভিযোগ
পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে এলাকাবাসী।
এলাকাবাসী ও ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার সূত্রে জানা গেছে, কালিয়াকৈর রেঞ্জ অফিসের
আওতায় চন্দ্রা বিট অফিসের গোয়ালবাথান এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।ওই এলাকার
শাহাজুদ্দিনের ছেলে শহিদুল ইসলাম(সবদুল) মিয়া দীর্ঘদিন বনবিভাগের ৫ শতাংশ
জমিতে বসবাস করে আসছে। তার থাকার ঘরের এক পাশে একটি দোকান রয়েছে।
কিন্তু দীর্ঘদিনের পুরোনো ওই ঘরের টিন নষ্ট হয়ে ঘরে বৃষ্টির পানি ঢুকে পড়ে। এ
কারণে সম্প্রতি ওই ঘরের টিন পরিবর্তন করে সবদুল মিয়া। খবর পেয়ে গত ১০-১২
দিন আগে চন্দ্রা বিট অফিসের ৫ থেকে ৬ জন লোক সেখানে যায়। পরে তারা
সবদুলের কাছে ৫০ হাজার টাকা দাবি করে। এ সময় সবদুল তাদের ৭ হাজার টাকা
দেয় এবং বাকী টাকা পরে দিবে বলে জানালে তারা চলে যায়। কিন্তু সোমবার সকালে
ওই চন্দ্রা বিট অফিসের কর্মকর্তা মঞ্জুরুল করিম তার লোকজন নিয়ে সবদুলের ঘরে
যান। পরে ওই পুরোনো ঘর ও দোকান ভাংচুর করে। এ সময় সবদুলের স্ত্রী মনোয়ারা
বেগম নিষেধ করতে গেলে তাকে গাড় ধরে ঘর থেকে বের করে দেয় বনবিভাগের
লোকজন। এছাড়া তারা টাকাসহ দোকানের ক্যাশ বাক্স লুট করে নিয়েছে বলেও
ভুক্তভোগীদের অভিযোগ।
তবে চন্দ্রা বিট অফিসের বিট কর্মকর্তা মঞ্জুরুল করিম এ বিষয়ে ক্যামেরার
সামনে বক্তব্য দিতে রাজি নন।

Related Articles

Back to top button
Close