সারাদেশ

চিরিরবন্দরে জমে উঠেছে পশুর হাট

মো. মিজানুর রহমান (মিজান), চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: ঈদকে সামনে রেখে শেষ মুর্হুতে দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার পশু হাটগুলো জমে উঠেছে। প্রতিটি হাটেই ছোট-বড় এবং মাঝারি সাইজের হাজার হাজার গরু উঠছে। শেষ মুর্হুতে পছন্দের পশুটি ক্রয় করতে সবাই ভিড় করছেন হাটগুলোতে। তবে দেশি গরুর প্রতি সবারই আগ্রহ বেশি। প্রতিটি হাটে এখন ক্রেতা-বিক্রেতাদের ভিড় রয়েছে। এবার ভারতীয় গরুর আমদানি না থাকলেও দেশি জাতের গরুর আমদানি পর্যাপ্ত পরিমাণে রয়েছে। পশুর দাম নিয়ে ক্রেতা-বিক্রেতাদের মধ্যে দ্বমত রয়েছে। পশুর খাদ্য সামগ্রীর মূল্য বৃদ্ধির কারণ দেখিয়ে বাড়িতে পশু পালন করা কৃষকরা তাদের পশুর দাম হাঁকালেও ক্রেতারা সেটাকে অনেক বেশি মনে করছেন। এদিকে, ব্যাপারিরা বিভিন্ন হাটে দেশিয় প্রজাতির গরু স্বাচ্ছন্দ্যে ক্রয় করতে পারছেন। ফলে তারা রয়েছেন বেশ স্বস্তিতে। তবে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের পশু পালনকারীরা তাদের পালনকৃত উন্নত জাতের গরু বেশি লাভের আশায় নিজ এলাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে বিক্রয়ের জন্য সরবরাহ করছেন।

উপজেলার নশরতপুর গ্রামের বালাপাড়ার গরু পালনকারী মো. হামিদুল হক জানান, আমার বাড়িতে আমি ১১টি গরু লালনপালন করেছি। আমি সেগুলো স্থানীয় রাণীরবন্দরহাটে নিয়ে দেশের বিভিন্ন জেলার ক্রেতাদের নিকট বিক্রি করেছি। সাধারণ ক্রেতাদের পাশাপাশি ব্যাপারিদের নজর কেড়েছে কৃষকদের পালা মাঝারি সাইজের দেশি গরু। সরেজমিনে উপজেলার প্রসিদ্ধ রাণীরবন্দরহাট ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের চাহিদার শীর্ষে থাকা দেশি গরু ৪০/১লাখ ২০হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে। কোরবানির জন্য ক্রয় করতে আসা অধিকাংশ ক্রেতাকেই এ ধরনের গরু কিনে বাড়ি ফিরতে দেখা গেছে।

Related Articles

Back to top button
Close