সারাদেশ

ঝিকরগাছায় শ্রীকৃষ্ণের ৫২৪৫তম জন্মাষ্টমী পালিত 

মিঠুন সরকার, ঝিকরগাছা (যশোর) প্রতিনিধি :

যুগাবতার ভগবান শ্রীকৃষ্ণের ৫২৪৫তম জন্মদিন তথা শুভজন্মাষ্টমী শুক্রবার(২৩ অগস্ট) যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় বর্নার্ঢ্য আয়োজনে পালিত হয়েছে ।

হিন্দু ধর্মীয় গ্রন্থ পুরান মতে, ভাদ্র মাসের শুক্লপক্ষের অষ্টম তিথিতে ভগবান শ্রী কৃষ্ণ জন্মগ্রহণ করেন। হিন্দু ধর্মালম্বীদের বিশ্বাস পাশবিক শক্তি যখন ন্যায়নীতি, সত্য ও সুন্দরকে গ্রাস করতে উদ্যত হয়েছিল, তখন সেই শক্তিকে দমন করে মানবজাতির কল্যাণ এবং ন্যায়নীতি প্রতিষ্ঠার জন্য মহাবতার ভগবান শ্রীকৃষ্ণের আবির্ভাব ঘটেছিল। দুষ্টের দমন করতে এভাবেই যুগে যুগে ভগবান মানুষের মাঝে নেমে আসেন এবং সত্য ও সুন্দরকে প্রতিষ্ঠা করেন বলে হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা বিশ্বাস করেন।
সকাল ১০ টায় বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ঝিকরগাছা উপজেলা শাখার ১১ টি ইউনিয়ন কমিটির নেতৃবৃন্দ পৃথক পৃথক মঙ্গোল শোভাযাত্রা নিয়ে শুভজন্মাষ্টমী উৎসবে যোগ দিতে থাকেন ।
সকাল ১১ টায় মঙ্গলদ্বীপ প্রজ্জ্বলন করা হয়। মঙ্গলদ্বীপ প্রজ্জ্বলনের পর দুপুর ১২ টায় প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথিবৃন্দ  আসন গ্রহণ করেন ।
১২ টা ১০ মিনিটে গীতাপাঠের মাধ্যমে জন্মাষ্টমী অনুষ্ঠানের শুভ শুকনা করেন ডাঃ তৃপ্তি রানী সাহা।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ৮৬,যশোর-২(চৌগাছা-ঝিকরগাছা) আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বীরমুক্তিযোদ্ধা ডাঃ মোঃ নাসির উদ্দিন বলেন, “হিন্দু-মুসলিম ভাই ভাই আমাদের কোনো ভেদাভেদ নাই,আপনারা সংখ্যালঘু নয় মানুষ হিসাবে বাঁচবেন।আপনার আর আমার মাঝে কোনো পার্থক্য নেই ।সংখ্যালঘু বলে কেউ আপনাদের উপর অত্যাচারের চেষ্টা করলে তাৎক্ষণিক আমাদের জানান আমরা ব্যবস্থা নেবো,আওয়ামীলীগ ব্যবস্থা নেবে।জাতিরপিতা কখনো মানুষকে অবমূল্যায়ন করতে শেখাননি,মানুষের উপর অত্যাচার করতে সেখাননি। আমরাও সেই আদর্শ নিয়ে একসাথে বাঁচতে চাই।আপনারা ভয় পাবেন না, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ আছে আপনাদের পাশে ।”
প্রধান ও বিশেষ অতিথিদের বক্তব্যের পর সনাতন ধর্মের তথা শ্রীকৃষ্ণের মাহাত্য ও জীবনের বিভিন্ন দিক হাজার হাজার ভক্তদের সামনে তুলে ধরেন ঢাকা থেকে আগত ইস্কন এর মুখ আলোচক রাজীব লোচন রাম দাস।
এর পর দুপুর ২ টায় ঝিকরগাছা শিব মন্দির থেকে বর্নার্ঢ্য শোভাযাত্রা বের করা হয় । শোভাযাত্রাটি ঝিকরগাছা থানা প্রদক্ষিণ করে বেনাপোল যশোর প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে ঝিকরগাছা বারোয়ারি পূজা মন্দিরে এসে শেষ হয় ।
এ শোভাযাত্রায় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের জন্য আলাদা মন্ত্রণালয় এবং শারদীয় দুর্গাউৎসবের ছুটি ৩ দিন করার দাবি জানিয়ে লিফলেট,প্লেকার্ড এবং ফেস্টুন প্রদর্শন করা হয়।
সন্ধ্যা ৭ টায় ঝিকরগাছা বারোয়ারি পূজা মন্দিরে কৃষ্ণ পূজা অনুষ্ঠিত হয় ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ঝিকরগাছা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম মুকুল,ঝিকরগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মোঃ মনিরুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুমি মজুমদার এর পক্ষে উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা সাধন কুমার বিশ্বাস,ঝিকরগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) আব্দুর রাজ্জাক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ সেলিম রেজা, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান লুবনা তাক্ষী,৫ নং পানিসারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নওশের আলী,
বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ঝিকরগাছা উপজেলা শাখার সভাপতি দুলাল অধিকারী ,সাধারণ-সম্পাদক তড়িৎ কান্তি বিশ্বাস,সাবেক সভাপতি অশোক দত্ত,গদখালী কালী মন্দিরের সভাপতি বাবুল ভক্ত,সদস্য বিধান ঘোষ,মাগুরা ইউনিয়ন পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি নন্দদেবনাথ, ঝিকরগাছা প্রেসক্লাবের সাধারণ-সম্পাদক ইমরান রশিদ,সাংবাদিক মিঠুন সরকার |
সামগ্রিক অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ঝিকরগাছা উপজেলা শাখার মাগুরা ইউনিয়ন কমিটির সাধারণ-সম্পাদক বিপ্লব কুন্ডু

Related Articles

Back to top button
Close