সারাদেশ

দিনাজপুরে প্রথমবারের মত হাতের মাধ্যমে রিং স্থাপনে সাফল্যঃ

এম এ হক, দিনাজপুর প্রতিনিধি। জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশনের সিনিয়র কনসালটেন্ট কার্ডিওলজিষ্ট ডা. মামুন ইকবাল এই প্রথম হাতের মাধ্যমে রিং স্থাপন করে ব্যাপক সাফল্য লাভ করেছেন।

জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশন হাসপাতাল সুত্রে জানা যায়, পার্বতীপুর উপজেলার পূর্ব সুকদেবপুর গ্রামের ৭০ বছর বয়সী দেলোয়ার হোসেন ৯ জুলাই সকাল ৯টায় হার্ট এ্যাটাক হয়ে দিনাজপুর জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশন এন্ড রিসার্স সেন্টারে ভর্তি হন। সেখানে ভর্তি হলে চিকিৎসক এস এম মামুন ইকবাল বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে সিদ্ধান্ত নেন যে, তার পায়ে রেডিয়াল প্রাইমারী এনজিও রিং স্থাপন করা সম্ভব নয়। তাই অনেক প্রচেষ্টার মাধ্যমে দীর্ঘ ৫ ঘন্টা সময় অতিবাহিত করে তার বাম হাতে রেডিয়াল প্রাইমারী এনজিও রিং স্থাপন করেন।

রোগী দেলোয়ার হোসেনের ছেলে আহসান আলী সরকার জানান, আমার বাবার চিকিৎসায় এই অভূতপূর্ব সাফল্যে আমরা অত্যন্ত খুশী। মহান আল­াহ পাকের শুকরিয়া আদায়ের পাশাপাশি ডা. মামুন ইকবালসহ সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি পরিবারের পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছেন। বর্তমানের আমার বাবা অনেক সুস্থ। তিনি স্বাভাবিক কথা-বার্তা বলতে পারছেন।

ডা. মামুন ইকবাল জানান, এ রোগ মূলতঃ ধুমপায়ীদের ক্ষেত্রে বেশী দেখা দেয়। রোগীর পায়ের নাড়ী বন্ধ থাকায় বিকল্প হিসেবে হাতেই রিং স্থাপন করতে হয়। তিনি আরও বলেন, বিশ্বব্যাপী স্বীকৃত চিকিৎসা পদ্ধতি অনুসারে হার্ট এ্যাটাক করার ১২ ঘন্টার মধ্যে উক্ত রিং স্থাপন করা প্রয়োজন।

উলে­খ্য, এর আগে জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশন এন্ড রিসার্স সেন্টারে অনেক রোগীর রিং স্থাপন করা হলেও হাতের মাধ্যমে রিং স্থাপন এটাই প্রথম।

Related Articles

Back to top button
Close