রাজনীতি

দেশে করোনা পরিস্থিতিতে এনজিও ঋণের কিস্তি আদায় অমানবিক -সি পি বি

আজকাল ডেক্সঃ দেশে উদ্ভূত করোনার সংকটকালে এনজিওসহ বিভিন্ন ক্ষুদ্র ঋণ সংস্থার কিস্তি আদায় অব্যাহত রাখাকে অমানবিক ও অন্যায্য বলে অভিহিত করেছে বাংলাদেশ কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)। অবিলম্বে এ ধরনের কিস্তি আদায় বন্ধ করার দাবি জানিয়েছে দলটি।

সোমবার (৮ জুন) সিপিবির কোভিড-১৯ রেসপন্স টিমের এক ভার্চ্যুয়াল সভায় এ দাবি জানানো হয়। সভায় সিপিবির নেতারা বলেন, চলমান করোনা মহামারিতে গভীর সংকটে পড়েছেন দেশের শ্রমজীবী, নিম্নবিত্ত মানুষ। রুটি-রুজির সীমাহীন সংকটে পড়ে, খেয়ে-না খেয়ে জীবন কাটাতে হচ্ছে তাদের। এসব মানুষ ক্ষুদ্র ঋণের জালে আটকে আছে। সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে দেশের বিভিন্ন জায়গায় অনেক এনজিও ক্ষুদ্র ঋণের কিস্তি আদায়ে বিশেষভাবে সক্রিয় হয়ে উঠেছে। দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে এটা শুধু অমানবিকই নয়, অন্যায্যও বটে। এনজিওরা বুঝিয়ে দিচ্ছে, মারা গেলেও তাদের শোষণ থেকে মানুষের মুক্তি নেই এ অবস্থা চলতে পারে না।

এ প্রসঙ্গে সরকারের সমালোচনা করে নেতারা আরও বলেন, ৩০ জুন পর্যন্ত কিস্তি আদায় বন্ধ না রাখলে লাইসেন্স বাতিল করা হবে বলে সরকার এনজিওগুলোর প্রতি ‘কাগুজে হুংকার’ দিয়েই নিজের দায়িত্ব শেষ করেছে। কিস্তি আদায় বন্ধ করতে কার্যত সরকারের দিক থেকে কোনো পদক্ষেপ নেই। বর্তমানে করোনা আর ক্ষুধার যন্ত্রণায় মানুষ এমনিতেই চরম অসহায় হয়ে পড়েছে, তার মধ্যে এই কিস্তির যন্ত্রণা মেনে নেওয়া যায় না। কিস্তির যন্ত্রণা থেকে মানুষকে মুক্ত করতে হবে। ৩০ জুন পর্যন্ত নয়, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত ক্ষুদ্র ঋণের সব ধরনের কিস্তি আদায় বন্ধ রাখতে হবে। এ ব্যাপারে সরকারকে কার্যকর ও কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

Related Articles

Back to top button
Close