সারাদেশ

মহিমাগঞ্জ উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে ঔষধ বিতরনে অনিয়ম

সাহাব উদ্দিন রাফেল : মহিমাগঞ্জ উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ঔষধ বিতরন ব্যবস্থায় গুরুত্ব দেয়া প্রয়োজন বলে দাবি করছেন স্থানীয়রা সহ আসে পাশে থেকে আসা এলাকার রোগীরা। পাশের সাঘাটা থানা সহ সোনাতলা উপজেলার কিছু মানুষ মহিমাগঞ্জ উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে প্রাথমিক চিকিৎসার নেওয়ার জন্য প্রতিদিন আসে। সরকারি হাসপাতালে দূর-দূরান্ত থেকে রোগী আসার পর কারো ভাগ্যে চারটা ট্যাবলেট কারো বা ছয়টা ট্যাবলেট মিলে।এর বেশি তাদেরকে দেওয়া হয় না।অনেকেই দাবি করেন এতদুর থেকে আসা রোগী 30-40 টাকা খরচ করে তাদের মহিমাগঞ্জ উপ-স্বাস্থ্যকেন্দ্রে আসতে হয় । এসে যদি প্যারাসিটামল চারটি, কোট্রিম ট্যাবলেট চারটি, ডক্সিসাইক্লিন, টেট্রাসাইক্লিন দশটি সর্বোচ্চ আর এন্টিবায়োটিক এমোক্সিসিলিন 250 এমজি ছাড়া আর কোন এন্টিবায়োটিক ঔষধ না পাওয়া যায় তখন আর তাদের দুঃখের শেষ থাকেনা। আবার অনেক রোগী ওষুধ না পাওয়ার কারনে ফিরেও চলে যায়। মহিমাগঞ্জ উপস্বাস্থ্যকেন্দ্রের ঔষধের বরাদ্দ কম থাকলে, রোগীর সেবার লক্ষ্যে বরাদ্দ বাড়িয়ে দিয়ে রোগীর সুষ্ঠু সেবা প্রদান করা হইলে গরিব দুখি মানুষের মুখে হয়তো একটু হাসি ফুটবে।দিন দিন এই অবস্থা চলতে থাকলে সাধারণ মানুষ সরকারি হাসপাতাল গুলোর দিকে ফিরেও চাইবে না মহিমাগঞ্জের সচেতন মহল দাবি করেছেন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি বিষয় টি গুরুত্ব সহ কারে দেখা।

Related Articles

Back to top button
Close