বগুড়ার-সংবাদশিবগঞ্জ

মাদকের স্পর্শে কখনও যাওয়া যাবে না। তা হলে ক্যারিয়ার ধ্বংস হয়ে যাবে-                               —— বগুড়া  পুলিশ  সুপার আলী আশরাফ ভুঞা,

রশিদুর রহমান রানা শিবগঞ্জ (বগুড়া)
১৮ বছরের নিচে মেয়েদের বিয়ে দেওয়া মানে তাকে হাত -পা বেধে কুয়ার মধ্যে ফেলে দেওয়া। অভিভাবকদের উদ্যেশে তিনি আরও বলেন কোন ক্রমেই ছেলেমেয়েদের অল্প বয়সে বিয়ে দেওয়া যাবেনা। শিক্ষার্থীদের উদ্যেশে তিনি বলেন কখনও ব্যর্থ কারো সাথে না মিশে সবচেয়ে যে ভাল ও মেধাবী তাদের সাথে মিশতে হবে। পোষাক বা অর্থের পরিচয়ে ভাল ছাত্র/ ছাত্রী হওয়া যায় না। ভাল ভাল/ ছাত্রী হতে হলে কঠোর পরিশ্র ও অনুশীলন করতে হবে। মাদকের স্পর্শে কখনও যাওয়া যাবে না।তা হলে ক্যারিয়ার ধ্বংস হয়ে যাবে। মেধার প্রতিযোগীতায় এগিয়ে যেতে হবে। জীবনে ভাল করার জন্য ধনী বা কোটি পতি হওয়ার প্রয়োজন হয় না। সফলতা নির্ভর করে মেধার ব্যবহার করে ভাল ছাত্র/ ছাত্রী হওয়া। প্রতিদিন কমপক্ষে ৫ ঘন্টা পড়ালেখা করলেই ভাল ফলাফল অর্জন করা সম্ভব। বিশ্ব যখন এগিয়ে যাচ্ছে তখন আমরা কেন পিছনে থাকব? যারা সমাজে অন্যায় করে বা জঙ্গীবাদ সৃষ্টিতে সহযেগীতা করতে চায় তাদের সংখ্যা অতি কম। তাদেরকে প্রতিরোধের জন্য স্থানীয়রা সিদ্ধান্ত নিলেই সমাজ থেকে জঙ্গীবাদ, মাদক ও বাল্য বিবাহ চিরতরে সমাধী ঘটানো সম্ভব। বগুড়া জেলায় পুলিশ সদস্য নিয়োগে গত বারের মত এবারও স্বচ্ছতার ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। যারা এ ব্যাপারে কোন দূর্নীতি করার চেষ্টা করবে, তাদেরকে আইনের আওতায় নিয়ে এসে কঠোর শাস্তি প্রদান করা হবে। এ ব্যাপারে অভিযান অব্যাহত আছে।
বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার দেউলী ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল হাই প্রধানের সভাপতিত্বে ও থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমানের পরিচালনায় শুক্রবার বিকালে গাংনগর এ, এম উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত জঙ্গীবাদ, মাদক ও বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ কল্পে কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন বগুড়ার সুযোগ্য পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুঞা বিপিএম (বার)।
এসময় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান ফিরোজ আহমেদ রিজু, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শিবগঞ্জ সার্কেল তাপস কুমার পাল, মোকামতলা ইউপি চেয়ারম্যান মোকলেছার রহমান, সৈয়দপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাহমুদ হাসান তৌফিক।
অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, গাংনগর মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সাংবাদিক আতিকুর রহমান আতিক, উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ এস এম ফাসিয়ার রহমান, টি আই রাশেদুজ্জামান রাশেদ,ইন্সপেক্টর সনাতন চন্দ্র সরকার, অপারেশন নান্নু মিয়া, এস আই মোস্তাফিজার রহমান,সহিদুল ইসলাম, আলহাজ্ব, আরিফুল ইসলাম আরিফ, আবু সাঈদ, শহিদুল ইসলাম, মাহবুর রহমান, শাহাদৎ হোসেন, সার্জেন্ট গোলাম রব্বানীসহ অত্র এলাকার সকল প্রতিষ্ঠানের ছাত্র/ ছাত্রী,অভিভাবক ও শিক্ষক / শিক্ষিকা এবং গণ্যমান্য ব্যক্তি বর্গ।

Related Articles

Back to top button
Close