বগুড়ার-সংবাদশেরপুর

শেরপুরে করতোয়া নদীতে মাছ ধরতে গিয়ে একই পরিবারের ৩ জনের মৃত্যু

সংবাদ আজকাল ডেস্কঃ বগুড়ার শেরপুরে করতোয়া নদীতে মাছ ধরতে গিয়ে ২ শিশুকে নিয়ে নদী পারাপারের সময় পানিতে ডুবে একই পরিবারের ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে ২ জনের লাশ উদ্ধার হলেও একজনের লাশ উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছে ।

শেরপুর ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স। এই ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। এলাকাবাসি সুত্রে জানা যায়, আজ বৃহস্পতিবার (২৯ আগষ্ট) দুপুর ১টার দিকে গাড়ীদহ ইউনিয়নের চন্ডিদান গ্রামের ব্রজেনের ছেলে চন্দন (৩২) তার মেয়ে কিরণ বালা (৫) এবং ভাতিজা উজ্জলের ছেলে গদাধর (৬) কে নিয়ে করতোয়া নদীতে জাল দিয়ে মাছ ধরতে চন্ডিজান কালীতলা এলাকায় যায়।

এ সময় মেয়ে ও ভাতিজাকে কাঁধে নিয়ে করতোয়া নদী পাড়াপারের সময় চন্দনের হাত থেকে মেয়ে কিরণবালা ফসকে গেলে তাকে ধরতে গিয়ে তিনজনেই পানিতে ডুবে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী সঞ্জয় দাস তাদেরকে ডুবে যেতে দেখে চিৎকার দিলে নদীর দু’পাড়ের লোকজন ছুটে এসে নদীর মধ্যে তাদের খুঁজতে থাকার একপর্যায়ে চন্দন ও কিরনবালাকে উদ্ধার করে শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন।

অপর শিশু গদাধর নদীতে নিখোঁজ রয়েছে। তার লাশ উদ্ধারের চেষ্টা করে যাচ্ছে। এ প্রসঙ্গে শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) বুলবুল ইসলাম জানান, ২ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

শেরপুর ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স এর স্টেশন অফিসার মো. রতন হোসেন জানান, ঘটনাস্থলতে কিরণবালা এবং ১ গজ দুরে চন্দনকে পাওয়া য়ায় অপর শিশুটিকে উদ্ধারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close