সোনাতলা'র সংবাদ

সোনাতলায় দলিল লেখক সমিতি দখলকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের দুপক্ষের সংঘর্ষঃ পুলিশের ফাঁকা গুলিবর্ষন আহত ৩

সোনাতলা (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ মঙ্গলবার সকালে সোনাতলা উপজেলা পরিষদস্থ দলিল লেথক সমিতির কার্যালয়ের সামনে উপজেলা দলিল লেখক সমিতির নিয়ন্ত্রণ নেয়াকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষে পুলিশসহ ৩ জন আহত হয়েছে।আহতরা হলেন, এ এসআই হাফিজুর রহমান,সুজাইতপুর গ্রামের এমদাদুল হকের পুত্র সুমন (২১) ও গড়ফতেপুর গ্রামের মৃত ফজলা ব্যাপারীর পুত্র ইমদাদুল (১৫) ।সংঘর্ষ ঠেকাতে পুলিশ ঘটনাস্থলে অবস্থান নিয়ে রাবার বুলেটের অন্তত ১৫ রাউন্ড ফাঁকা গুলি করেছে। জানা যায়, মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর সোনাতলা দলিল লেখক সমিতির নেতৃত্ব নেয় উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নবীন আনোয়ার কমরেড,উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদকের ছেলে ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য মাকছুমুল হাসান বকুল ও উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবাবায়ক মোমিনুল ইসলাম মিঠুসহ আওয়ামীপন্থী মোহরাররা।তাঁদের নেতৃত্বে স্বাভাবিকভাবে দলিল লেখক সমিতির কর্মকান্ড চললেও মঙ্গলবার দলিল লেখক সমিতির নেতৃত্ব নেয়ার চেষ্টা করে পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মশিউর রহমান রানার নেতৃত্বাধীন পৌর আওয়ামীলীগের একাংশ। এ নিয়ে উভয় পক্ষের অনুসারীদের মধ্যে দফায় দফায় বাক-বিতন্ডা ঘটে এসময় চরম উত্তেজনাকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে পরিস্হিতি নিয়ন্ত্রনে রাখতে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাঠিচার্জ করে। এ সময় হাফিজ নামের পুলিশের এক এ এসআই আহত হয়। এ সময় পুলিশ সর্টগানের অন্তত ১৫-২০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ ব্যাপারে সোনাতলা থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল মোতালেব জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রাখতে পুলিশ তৎপর রয়েছে। অপরাধী যেই হোক কাউকে ছাড় দেয়া হবেনা। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন মামলা দায়ের হয়নি।

Related Articles

Back to top button
Close