সোনাতলা'র সংবাদ

সোনাতলায় পুলিশের চোঁখ ফাকি দিয়ে চলছে রমরমা ডিজিটাল জুয়া

জাহিনুর ইসলাম: সম্প্রতি সময়ের সাথে তাল যুগিয়ে চলছে ‍জুয়া’ এ খেলায় অভ্যস্থ জুয়ারুরা তাস দিয়ে জুয়া খেলায় অনেকে পুলিশের গ্রেফতার ভয়ে কৌশল পরিবর্তন করে ডিজিটাল পদ্ধতি কাজে লাগিয়ে খেলছে সর্বনাসা জুয়া,আর এসব খেলায় জরিয়ে পড়ছে,খেটে খাওয়া মানুষ থেকে শুরুকরে সর্বস্থরের মানুষ,স্কুল,কলেজ পুড়ুয়া ছাত্ররা, অসাধু জুয়া খেলোয়ার চক্রর, জালে পা দিয়ে অনেকে না বুঝে খেলছে এইসব জুয়া।

এক সময় ক্রিকেট জুয়া খেলা নিয়ে দেশের অনেক জায়গার মতো সোনাতলায় ঘটেছে অনেক অপ্রিতিকর ঘটনা, কেউ হারিয়েছে,তার ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান কেউ এখনো রয়েছে না পাত্তা,কেউ গ্রেফতার হয়ে জেল খেটেছে,তবুও এ জুয়া চলছে রমরমা । নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজনের কাছে জানাযায়,এখন ক্রিকেট ম্যাচে ,র সাথে প্রতিটি ওভার,সুপার ওভার, প্রতিবল,ব্যাটে রান এর বাজি চলে। আর এসব বাজিতে বাজিগররা ১শত,৫শত.১হাজার টাকা থেকে ২০/৩০হাজার টাকার খেলা চলে।

এর সাথে আবার নতুন করে সম্প্রতি সময়ে যোগ হয়েছে ডিজিটাল জুয়া, এক সময়কার গ্রামবাংলার জনপ্রিয় খেলা সাপ লুডু।

প্রযুক্তির ফলে এ খেলা এ্যান্ডুয়েড মোবাইল ভার্সন এ অ্যাপ্স এর মাধ্যমে ইনিস্টল করে এক সংঙ্গে ৪ জন মিলে খেলা যায় এ গেমটি। আর জুয়ারুরা এ পদ্ধতি কাজে লাগিয়ে সর্বস্তরে ছড়িয়ে দিতে মড়িয়া হয়ে হঠেছে। এ খেলায় মূল ৪ জনের পাশাপাশি আরো ৪-১০জন মিলে একত্রে ২০ টাকা থেকে শুরু করে প্রতিটি গেইমে ১ হাজার টাকা পযর্ন্ত বাজি ধরে খেলছে একটি লুডু গেম।

পুলিশের চোঁখ ফাকি দিয়ে চলছে, যা এখন একটু চোঁখ মেললেই দেখাযায়,সোনাতলা পৌর এলাকার অধিকাংশ দোকান,বিপনন কেন্দ্র ও বাস,মাইক্রো,ভ্যান,সিএনজি ষ্ট্যান্ডসহ বাজার এলাকাগুলোতে।

যা এখনই প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহন না করলে ছড়িয়ে যাবে সর্বস্তরে। এ বিষয়ে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ জরুরী হয়ে পড়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close