জাতীয়

৬ মাসে বন্ধ হয়েছে ৪৬ গার্মেন্টস, বেকার হয়েছে প্রায় সাড়ে ২৫ হাজার শ্রমিক

সাহাব উদ্দিন রাফেল : ব্যবসা সংকট ও অনৈতিক প্রতিযোগিতার কারণে শ্রমিকদের বেতনভাতা, মজুরি এবং অফিসের ব্যয় বহন না করতে পেরে গত সাড়ে ৬ মাসে ৪৬টি তৈরি পোশাক কারখানা বন্ধ হয়ে গেছে।বলে নিস্চিত করেছেন  তৈরি পোশাক মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ’র সভাপতি ড. রুবানা হক। তিনি বলেন, ‘চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি থেকে ১২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রায় সাড়ে ছয় মাসে ৪৬টি গার্মেন্টস বন্ধ হয়েছে। তাতে ২৫ হাজার ৪৫৩ শ্রমিক ও কর্মকর্তা চাকরি হারিয়েছে।আর ব্যবসায়ীরা ব্যবসা হারিয়েছেন।

রুবানা হক বলেন, ‘বিদেশি পণ্য রফতানির ক্ষেত্রে পোশাক কারখানাগুলো এখন দর কষা কষি করতে পারছে না। কিন্তু কেউ সাহস করে কিছু বলতে পারছে না। কিছু কারখানা ওভার ইনভেস্টমেন্ট (অতিরিক্ত বিনিয়োগ) করে আসছে। ফলে এখন এই খাতে চরম দুরবস্থা চলছে।আমি দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই এখন পর্যন্ত ৪৬টি কারখানা বন্ধ হয়েছে।’

গার্মেন্টস মালিকরা বলছেন, দেশে পোশাক কারখানা বন্ধ হওয়ার ঘটনা নতুন নয়। প্রতি মাসেই কোনো না কোনো কারখানা বন্ধ হয়ে যাওয়ার মতো ঘটনা ঘটছে।

Related Articles

Back to top button
Close